Monday 20th of May 2024
Home / শিক্ষাঙ্গন / বাংলাদেশ খাদ্য স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জনের সিংহভাগ কৃতিত্ব বাকৃবি’র গবেষকদের -প্রফেসর ড. হাসিনা খান

বাংলাদেশ খাদ্য স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জনের সিংহভাগ কৃতিত্ব বাকৃবি’র গবেষকদের -প্রফেসর ড. হাসিনা খান

Published at নভেম্বর ১৪, ২০২৩

 মঙ্গলবার (১৪ নভেম্বর) বাকৃবি শিক্ষক সমিতির আয়োজনে বার্ষিক সেমিনার এবং সেরা প্রকাশনা পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছেন ইউজিসি সদস্য প্রফেসর ড. হাসিনা খান।

কৃষিবিদ দীন মোহাম্মদ দীনু (বাকৃবি) : বাংলাদেশ খাদ্য স্বয়ংসম্পূর্ণতা অর্জনের সিংহভাগ কৃতিত্ব বাকৃবি’র শিক্ষক, গবেষকদের। চতুর্থ শিল্প বিপ্লব মোকাবেলায় গবেষকদের বিাভন্ন প্রতিবন্ধকতায় কাজ করতে হচ্ছে। কৃষির নানা চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় বাকৃবি গবেষকদের কৃতিত্ব অনস্বীকার্য।

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) সৈয়দ নজরুল ইসলাম সম্মেলন কক্ষে বাকৃবি শিক্ষক সমিতির আয়োজনে মঙ্গলবার (১৪ নভেম্বর) সকাল ১০টায় বার্ষিক সেমিনার এবং সেরা প্রকাশনা পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ইউজিসি সদস্য প্রফেসর ড. হাসিনা খান এসব কথা বলেন। অধ্যাপক ড. হাসিনা খান তার বক্তব্যে পুরস্কারপ্রাপ্ত সকলকে অভিনন্দন জানান এবং বাকৃবি শিক্ষক সমিতির এই মহতী উদ্যোগের প্রশংসা করেন।

অনুষ্ঠানে শিক্ষক সমিতির সভাপতি প্রফেসর ড. মুহাম্মদ আসলাম আলী এর সভাপতিত্বে প্রধান পৃষ্ঠপোষক হিসেবে বক্তব্য রাখেন ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. এমদাদুল হক চৌধুরী। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ডিন কাউন্সিলের আহবায়ক প্রফেসর ড. আবুল মনসুর।

এসময় ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. এমদাদুল হক চৌধুরী বলেন, প্রতিযোগিতার এ যুগে টিকে থাকতে হলে মানসম্মত গ্রাজুয়েট এর বিকল্প নাই। শিক্ষার্থীদের মাঝে উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে ওঠার মানসিকতা তৈরি করতে হবে। তিনি সম্মানিত শিক্ষকদের লক্ষ্য অর্জনে এগিয়ে আসার জন্য অনুরোধ করেন।

শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম এর সঞ্চালনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন শিক্ষক সমিতির সহ-সভাপতি প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আমিরুল ইসলাম এবং ‘উচ্চশিক্ষায় একাডেমিক প্রোগ্রামের গুণগত মানের নিশ্চয়তা’ শীর্ষক বিষয়ে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন মাইক্রোবায়োলজি এন্ড হাইজিন বিভাগের প্রফেসর ড. সুকুমার সাহা।

উল্লেখ্য, ৫টি ক্যাটাগরিতে অনুষদওয়ারী ভাগ করে মোট ২০জনকে তাদের গবেষণা প্রবন্ধ প্রকাশনার উপর পুরস্কৃত করা হয়। সর্বোচ্চ প্রকাশনা ক্যাটাগরিতে সেরা গবেষক নির্বাচিত হন ফিসারিজ ম্যানেজমেন্ট বিভাগের প্রফেসর ড. মো. শাহজাহান। হোম ক্যাটাগরিতে এনাটমি অ্যান্ড হিস্টোলজি বিভাগের প্রফেসর ড. জিয়াউল হক, কৃষি রসায়ন বিভাগের প্রফেসর ড. মো. জাকির হোসেন, এনিমেল সায়েন্স বিভাগের প্রফেসর ড. মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান, কৃষি অর্থনীতি বিভাগের প্রফেসর ড. মো. আকতারুজ্জামান, কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ম্যাথমেটিক্স বিভাগের জনাব মেছবাহ উদ্দিন। ফরেন ক্যাটাগরিতে সার্জারি এন্ড অবস্টেট্রিক্স বিভাগের প্রফেসর ড. মোমেনা খাতুন, প্রাণ রসায়ন ও অনুপ্রাণ বিজ্ঞান বিভাগের ড. শাকিল মাহমুদ, কৃষি ও ফলিত পরিসংখ্যান বিভাগের ড. মো. ফুয়াদ হাসান, সেচ ও পানি ব্যবস্থাপনা বিভাগের ড. মো. তৌহিদুল ইসলাম। কোলাবরেশন ক্যাটাগরিতে প্যাথলজি বিভাগ থেকে যৌথভাবে প্রফেসর ড. রোখসানা পারভীন ও প্রফেসর ড. মোহাম্মদ নূরুজ্জামান, কৃষি শিক্ষা ও সম্প্রসারণ বিভাগের ড. খোন্দকার হুমায়ুন কবীর, কৃষি ব্যবসা ও বিপণন বিভাগের প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, ফিশারিজ ম্যানেজমেন্ট বিভাগের প্রফেসর ড. মো. শাহজাহান। রিভিউ ক্যাটাগরিতে মাইক্রোবায়োলজি এন্ড হাইজিন বিভাগের প্রফেসর ড. মো. তানভীর রহমান, প্রাণ রসায়ন ও অনুপ্রাণ বিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ড. মো. আবদুল হান্নান, অ্যানিমেল সায়েন্স বিভাগের প্রফেসর ড. সৈয়দ মোহাম্মদ এহসানুর রহমান, কৃষি ব্যবসা ও বিপণন বিভাগের প্রফেসর ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, ফিশারিজ ম্যানেজমেন্ট বিভাগের প্রফেসর ড. মো. শাহজাহান।

সদস্য সচিব, প্রফেসর ড. মো. আমিনুল ইসলাম বলেন, এটা সত্যিই আশাব্যঞ্জক যে বাকৃবি এর উচ্চ মানের গবেষণা উৎপাদনশীলতা নির্দেশ করে ‘হোম রিসার্চ ক্যাটাগরিতে’ আবেদনের সংখ্যা কয়েক বছর ধরে বৃদ্ধি পাচ্ছে। তবুও, ফ্যাকাল্টি সদস্যদের তাদের বাকৃবি-এর অধিভুক্তিগুলিকে বিদেশ থেকে তৈরি করা প্রভাব প্রকাশনাগুলিতে অন্তুর্ভুক্ত করার জন্য আরও উৎসাহিত করা উচিত যাতে বাকৃবি-এর দৃশ্যমানতা এবং উন্নত বিশ্বব্যাপী র্যাঙ্কিং স্কেল বৃদ্ধি পায়।

তিনি আরও বলেন, ২০১৩ সাল থেকে, বাকৃবি শিক্ষক সমিতি বিগত ক্যালেন্ডার বছরে বাকৃবি শিক্ষকদের দ্বারা প্রকাশিত একক সেরা বৈজ্ঞানিক নিবন্ধের জন্য ‘সেরা প্রকাশনা পুরস্কার’ প্রদান করে আসছে। একইভাবে, এই বছর বাকৃবি শিক্ষক সমিতি ২০২৩ সম্মানিত শিক্ষকদের তাদের ২০২২ সালে প্রকাশিত বাকৃবি -সংশ্লিষ্ট সর্বোচ্চ প্রভাব পত্রের জন্য আবেদন করার জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছিল। মোট ৯৯টি আবেদন চারটি ভিন্ন বিভাগে গৃহীত হয়েছে [হোম রিসার্চ ক্যাটাগরি, ফরেন রিসার্চ ক্যাটাগরি, কোলাবোরেটিভ রিসার্চ বিভাগ বিজ্ঞাপন পর্যালোচনা নিবন্ধ বিভাগ] বাকৃবি এর ছয়টি অনুষদে। সেরা প্রকাশনা পুরস্কার নির্বাচন কমিটির ২০২৩-এর সভাপতি অধ্যাপক ড. ফরিদা ইয়াসমিন বারী তার উদ্বোধনী বক্তৃতায় বাছাই প্রক্রিয়া সম্পর্কে অবহিত করেন, পুরস্কারপ্রাপ্তদের অভিনন্দন জানান এবং কমিটির সদস্যদের ধন্যবাদ জানান। সেরা প্রকাশনা পুরস্কার প্রদানের সেশনটি পরিচালনা করেন অধ্যাপক ড. মো. আমিনুল ইসলাম, সদস্য সচিব, শ্রেষ্ঠ প্রকাশনা পুরস্কার নির্বাচন কমিটি ২০২৩

অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন অনুষদীয় ডিন, বিভাগীয় প্রধান, শিক্ষকসহ আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

This post has already been read 944 times!