Tuesday 17th of May 2022
Home / পোলট্রি / ব্রয়লার বাচ্চার ব্রুডার হাউস তৈরি ও কেমন ব্রুডার হওয়া উত্তম

ব্রয়লার বাচ্চার ব্রুডার হাউস তৈরি ও কেমন ব্রুডার হওয়া উত্তম

Published at মার্চ ১৩, ২০২২

ডা. মো. . ছালেক : ব্রয়লার বাচ্চার কাঙ্ক্ষিত দৈহিক বৃদ্ধি সাধনের জন্য সঠিকভাবে ব্রুডিং হাউস তৈরি এবং কেমন ব্রুডিং হওয়া দরকার, একজন খামারীর এসব বিষয়ে জ্ঞান ও অভিজ্ঞতা অর্জন করা অপরিহার্য। নিম্নে ব্রুডিং হাউস সম্পর্কে আলোচনা করা হলো-

ব্রুডার হাউস

শেডের বা ঘরের ভিতরে নির্দিষ্ট সংখ্যক বাচ্চাকে ১-১.৫ ফুট (৩০-৪৫ সেমি) উচ্চতার বেড়া দিয়ে গোল করে ঘিরে রেখে তাপ দেওয়া হয়। এই গোল করা জায়গাটিকে ব্রুডিং এরিয়া বলে। বাচ্চাকে তাপ প্রদানের জন্য একটি ৩ ফুট (০.৯১-১.২ মিটার) ব্যাসের টিনের গোলাকার ঢাকনা ব্যবহার করা হয়, যা ব্রুডার নামে পরিচিত এবং সেই ঢাকনাটিকে বৈদ্যুতিক বাল্ব হোল্ডার বা গ্যাসের কয়েল লাগানোর ব্যবস্থা  থাকে।  এই  ঢাকনাটি  ওঠা-নামার ব্যবস্থাসহ ঝোলানো হয়। কি পরিমাণ বাচ্চা ব্রুডিং করা হবে তার ওপর নির্ভর করে ব্রুডারের আকার ঠিক করতে হবে।

বৈদ্যতিক বাল্বের মাধ্যমে ব্রুডিং করা হলে সেক্ষেত্রে সাধারণত ৫০০ বাচ্চা একসাথে ব্রুডিং করার জন্য ৪ ফুট (১.২ মিটার) ব্যাসের একটি ঢাকনা ব্যবহার করা হয়। বাচ্চাগুলো ঘিরে রাখার জন্য বাচ্চার সংখ্যা অনুযায়ী ব্রুডারের কিনারা হতে দূরত্ব নির্ধারণ করে চিকগার্ড স্থাপন করতে হয়। সাধারণত ৫০০ বাচ্চার জন্য ব্রুডারের কিনারা বা প্রান্তÍ হতে ৩ ফুট দূরে গোলাকারভাবে চিকগার্ড স্থাপন করা হয়। পরবর্তীতে ব্রুডিং কালে প্রতি সপ্তাহে চিকগার্ড বাচ্চার ঘনত্ব অনযায়ী আনপাতিক হারে জায়গা বাড়াতে হয়। গ্যাস ব্রুডারের ক্ষেত্রে ১৫০০-২০০০ বাচ্চার জন্য একটি ব্রুডার ব্যবহার করা হয়।

কেমন ব্রুডার হওয়া উত্তম

সব সময় গ্যাসের ব্রুডার ব্যবহার করা সবচেয়ে উত্তম। তবে বৈদ্যুতিক ব্রুডার ব্যবহাকরলে শীতকালে প্রতিটি বাচ্চার জন্য ২ ওয়াট হিসাবে এবং গরমকালে প্রতি বাচ্চার জন্য ১ ওয়াট হিসেবে প্রয়োজনীয় বাল্ব ব্যবহার করা উচিত যাতে বাচ্চাকে তাপ দেওয়া যেতে পারে। এতে তাপ পর্যাপ্ত না হলে ব্রুডার বাল্বের পরিমাণ বাড়ানো যেতে পারে। অনেক খামারী গ্যাস ব্রুডার ব্যবহার করে থাকেন। ব্রুডার যে ধরণের হোক না কেন, ঘরের প্রতিটি বাচ্চাকে যাতে একসাথে ব্রুডারের  নিচে  অর্থাৎ  গরম  এলাকায় প্রয়োজন হলে অপেক্ষাকৃত ঠান্ডা এলাকায় অবস্থান করতে পারে, তার ব্যবস্থা করতে হবে।

লেখক: চীফ টেকনিক্যাল এ্যাডভাইজার, এসিআই এনিম্যাল হেলথ।

This post has already been read 1070 times!