২১ শ্রাবণ ১৪২৭, ৪ আগস্ট ২০২০, ১৫ জিলহজ্জ ১৪৪১
শিরোনাম :

রপ্তানিযোগ্য আলুর আবাদ আরো বাড়াতে হবে -কৃষিমন্ত্রী

Published at জুলাই ১৮, ২০২০

নিজস্ব প্রতিবেদক: কৃষিমন্ত্রী ড. মো: আব্দুর রাজ্জাক, এমপি বলেছেন, বিএডিসি’র উচ্চফলনশীল জাতের আলু আবাদের ফলে এখন বছরে ১ কোটি টনের বেশি উন্নত জাতের আলু উৎপাদন হয়। দেশে চাহিদা রয়েছে ৬০-৭০ লাখ টনের মতো। এসব উদ্বৃত্ত আলু বিদেশে রপ্তানি করতে হবে। এদেশে উৎপাদিত আলুতে পানির পরিমাণ বেশি হওয়ায় বিদেশে চাহিদা কম। সেজন্য এমন জাতের আলু উৎপাদন করতে হবে যেগুলোর চাহিদা বিদেশে আছে। কৃষি মন্ত্রণালয় সেলক্ষ্যে নিরলস কাজ করছে। মন্ত্রী শনিবার (১৮ জুলাই) বিকালে তাঁর সরকারি বাসভবন থেকে টাঙ্গাইলের ধনবাড়ীতে বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশনের (বিএডিসি) মালতি হিমাগার জোনের চুক্তিবদ্ধ বীজআলু উৎপাদনকারী চাষিদের মাঝে চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে ভিডিও কনফারেন্সে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন।

চলমান বন্যার কারণে আমনের বীজতলা নষ্ট হয়ে থাকলে দ্রুত বিকল্প বীজতলা তৈরির নির্দেশ দিয়ে মন্ত্রী কৃষি কর্মকর্তাদের উদ্দেশে বলেন, পর্যাপ্ত বীজ মজুদ রয়েছে। এসব বীজ ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের মাঝে বিতরণ করে নতুন বীজতলা তৈরি করতে হবে। তিনি আরও বলেন, এ সরকার সবসময় কৃষকের পাশে ছিল, বর্তমানেও আছে, ভবিষ্যতেও থাকবে।

বিএডিসি’র মানসম্পন্ন বীজআলু উৎপাদন, সংরক্ষণ এবং কৃষক পর্যায়ে বিতরণ প্রকল্পের আওতায় ধনবাড়ীর মালতি হিমাগার জোনের ১৭৫জন বীজআলু উৎপাদনকারী চাষিদের মাঝে ২ হাজার ২০০ মেট্রিক টন বীজআলুর মূল্যবাবদ প্রায় ২ কোটি ৯০ লক্ষ টাকার চেক বিতরণ করা হয়।

বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন কর্পোরেশনের (বিএডিসি) অতিরিক্ত মহাব্যবস্থাপক মো. ইব্রাহিম হোসেনের সভাপতিত্বে বিএডিসির চেয়ারম্যান মো. সায়েদুল ইসলাম, ধনবাড়ী উপজেলা চেয়ারম্যান হারুনার রশীদ হীরা, উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফা সিদ্দিকা, পৌর মেয়র খন্দকার মঞ্জুরুল ইসলাম তপন, প্রকল্প পরিচালক (আলুবীজ) আবীর হোসেন প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

This post has already been read 339 times!

Fixing WordPress Problems developed by BN WEB DESIGN